সিলেট ১২ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ২৮শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ৬ই মহর্‌রম, ১৪৪৬ হিজরি

ঘরের মাঠেও সিলেট  স্ট্রাইকার্সের পরাজয়

Stuff
প্রকাশিত জানুয়ারি ২৭, ২০২৪, ১২:২৮ পূর্বাহ্ণ
ঘরের মাঠেও সিলেট  স্ট্রাইকার্সের পরাজয়

আওয়াজ ডেস্ক:: ঢাকায় দুই ম্যাচ হেরে এসেছিল সিলেট স্ট্রাইকার্স। ঘরের মাঠ, গ্যালারিভর্তি সমর্থনেও ভাগ্য বদলালো না তাদের।

কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সকে অল্প রানে আটকে দিয়েও তাড়া করতে পারেনি সিলেটের। এ নিয়ে টানা তিন ম্যাচে হারলো তারা।

সিলেট আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের কাছে ৫২ রানে হেরেছে সিলেট স্ট্রাইকার্স। শুরুতে ব্যাট করতে নেমে ৮ উইকেট হারিয়ে ১৩০ রান করে কুমিল্লা। জবাব দিতে নেমে ৭৮ রানে অলআউট হয়ে গেছে সিলেট।

টস হেরে শুরুতে ব্যাট করতে নেমে সুবিধা করতে পারেনি কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স। চতুর্থ বলে বেন কাটিংয়ের শিকার হন লিটন দাস। ৪ বলে ৮ রান করেন লিটন। এরপর ইমরুল কায়েসের সঙ্গে ৪৭ রানের জুটি গড়েন মোহাম্মদ রিজওয়ান। ১৬ বলে ১৪ রান করে আউট হয়ে যান রিজওয়ান।

তাকে দিয়ে সামিত প্যাটেল উইকেট নেওয়া শুরু করেন। এরপর আরও দুই উইকেট নেন তিনি। ২৮ বলে ৩০ রান করা ইমরুল ও ৫ বলে ২ রান করা সামিত আউট হয়ে যান। শেষদিকে দুই ব্যাটার রান পান।

২৭ বলে ২৯ রান করেন জাকের আলি, খুশদিল শাহের ব্যাট থেকে আসে ২২ বলে ২১ রান। এর বাইরে আর কোনো ব্যাটারই সেভাবে রান করতে পারেননি। ৪ ওভারে ১৬ রান দিয়ে ৩ উইকেট নেন সামিত, দুই উইকেট নেন রিচার্ড এনগারাভা।

রান তাড়ায় নেমে সুবিধা করতে পারেনি সিলেট স্ট্রাইকার্সও। এক জাকির হাসান ছাড়া আর কোনো ব্যাটারই সেভাবে দাঁড়াতে পারেননি। আলিস আল ইসলামের ঘূর্ণিতে বিপাকে পড়ে যায় দলটি। একপ্রান্ত  আগলে রেখে একাই লড়াই করতে থাকেন জাকির।

২৮ রানে ছয় উইকেট হারিয়ে ফেলার পর তার সঙ্গে ছোট জুটি হয় রায়ান বার্লের। দুজনের ৪০ রানের জুটিতে ক্ষীণ সম্ভাবনা তৈরি হয়েছিল। কিন্তু রস্টন চেজের বলে খুশদিল শাহের হাতে ক্যাচ দিয়ে বার্ল ফিরলে সেটিও শেষ হয়ে যায়। ১৮ বলে ১৪ রান করেন বার্ল।

খানিকক্ষণ পর আউট হয়ে যাওয়া জাকির সর্বোচ্চ রান করেন। ৩৪ বলে ৪১ রান করেন তিনি। ৪ ওভারে মাত্র ১৭ রান দিয়ে ৪ উইকেট নেন আলিস। দুইটি উইকেট পান চেজ।